তালতীর্থের ‘শ্রাবণ সন্ধ্যা’ আগামী ১৬ জুলাই

"তালতীর্থ তবলা শিক্ষা ও শিল্পী নিকেতন" এর "শ্রাবণ সন্ধ্যা" শীর্ষক ফেসবুক লাইভ অনুষ্ঠান আগামী ১৬ জুলাই, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭ঃ৩০ মিনিটে তালতীর্থের অফিশিয়াল ফেসবুক পেইজ থেকে সরাসরিভাবে সম্প্রচার করা হবে।।

92

ষড়ঋতুর বাংলাদেশে ঋতুর পালাবদল পরিক্রমার অংশ হিশেবে বর্ষা এসে গিয়েছে। বর্ষা মানেই নতুন রঙে, নতুন ভাবে প্রকৃতি সাজে। সারা প্রকৃতি জুড়ে স্নিগ্ধতা আবহ আর আনন্দ সুর তোলে। 

আর বাঙালি মানেই কিন্তু  ‘বারো মাসে তেরো পার্বণ’। আমরা ষড়ঋতুর বাংলাদেশের বাঙালিরা প্রকৃতির এই একেকটি রুপকে বরণ করে নিই গান-তাল-সুর-লয়ে।    

প্রতিবছরের মতো এবারো বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চলের সাংস্কৃতিক গোষ্ঠীগুলোর আয়োজন ছিল বর্ষাবরণের। 

কিন্তু বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাসের জন্য বাঙালির এই প্রাণের আয়োজনের সবটুকুই মাটি হয়ে গেল। 

তবে বর্তমান সময়ে তথ্য প্রযুক্তির আশীর্বাদে সবকিছুই চলছে অনলাইন বা ভার্চুয়াল মাধ্যমে। প্রকৃতিতে যখন বর্ষা এসছে তখন কি বাঙালিরা চুপ করে বসে থাকতে পারে।

প্রকৃতির শ্যামল ও সবুজ রূপের প্রতীক বর্ষার আগমনে চট্টগ্রামের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ সাংস্কৃতিক প্রতিষ্ঠান “তালতীর্থ তবলা শিক্ষা ও শিল্পী নিকেতন” ও আয়োজন করেছে অনলাইন বা ভার্চুয়ালভাবে বর্ষা বরণের। 

তালতীর্থ’র এবারের আয়োজন “শ্রাবণ সন্ধ্যা” শীর্ষক ফেসবুক লাইভ। আগামী ১৬ জুলাই, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭ঃ৩০ টায় তালতীর্থের অফিশিয়াল ফেসবুক পেইজ থেকে অনুষ্ঠানটি সরাসরিভাবে সম্প্রচার করা হবে।।

‌‌‌‌‌অনুষ্ঠানটি পরিচালনায় থাকবেন “তালতীর্থ তবলা শিক্ষা ও শিল্পী নিকেতন” এর পরিচালক শ্রী সুদেব কুমার দাশ। অনুষ্ঠান ‌‌‌সঞ্চালনায় থাকবেন— অর্জন মল্লিক। অনুষ্ঠানে তবলা ও গান পরিবেশনায় — অনয় চক্রবর্তী, অরিত্র বিশ্বাস, অর্নিকা দাশ, পিয়া দাশ, শ্রাবণী দাশগুপ্তা, তিথী দাশ, অসীম চৌধুরী, প্রমা অবন্তী ও গৌরী নন্দী।‌‌‌‌‌‌‌ অনুষ্ঠান সম্পাদনায়- অপরূপ চৌধুরী। সার্বিক সহযোগিতায় তালতীর্থের সকল সদস্যবৃন্দ।

“তালতীর্থ তবলা শিক্ষা ও শিল্পী নিকেতন” এর পরিচালক শ্রী সুদেব কুমার দাশ সকলকে সবিনয়ে অনুষ্ঠানটি দেখার আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।